জয়ী হলে জনগণের মতামতে আমি সিটি করপোরেশন চালাবো : তৈমূর

নারায়ণগঞ্জ সিটি করপোরেশন নির্বাচনের স্বতন্ত্র মেয়র প্রার্থী বিএনপি চেয়ারপারসনের উপদেষ্টা অ্যাডভোকেট তৈমূর আলম খন্দকার বলেছেন, হকাররাও এ দেশের মানুষ। তাদের সমস্যার সমাধান করতে হবে এবং নারায়ণগঞ্জের নাগরিক যারা তাদেরকেও স্বাচ্ছন্দ্যে চলাচল করতে হবে। এটা এমন কোন সমস্যা না যে এটা সমাধান করা যাবে না। আজকে যারা পাওয়ার পয়েন্ট তারা আলাল দুলাল খেলায় ব্যস্ত। মেয়র ডাইনে গেলে এমপি যায় বায়ে। আরেকটা হল চোর পুলিশ খেলা। হকাররাও তো বিপদে আছে। তাদের এখানে বসতে হয় পুলিশকে টাকা দিয়ে। যতক্ষণ টাকা দেয় ততক্ষণ বসতে পারে এরপর বসতে পারে না। আমি বলতে চাই আপনারা অত্যন্ত গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা পালন করছেন। আল্লাহ যদি আমাকে মঞ্জুর করেন তাহলে আমি আপনাদের সাথে আলোচনা করে সিটি করপোরেশন চালাবো।

রবিবার ট্রেন দুর্ঘটনা রোধে আমরা নারায়ণগঞ্জবাসীর উদ্যোগে আয়োজিত এক অবস্থান কর্মসূচিতে অংশ নিয়ে একথা জানান তিনি।তৈমূর বলেন, আমি দুর্ঘটনাটির খবর পাওয়ার সাথে সাথে এখানে উপস্থিত হয়েছি। এসে জানতে পেরেছি যানজটের কারণে বাসটা সরিয়ে নেয়া সম্ভব হয়নি। এই যানজট নিয়ে আপনারা দীর্ঘদিন যাবৎ আন্দোলন করে যাচ্ছেন। কিন্তু এর কেন সুরাহা হচ্ছে না। এটা কর্তৃপক্ষের কর্ণগোচর হচ্ছে না। তারা ভাবে এভাবে কিছুক্ষণ বসে থাকবেন তারপর চলে যাবেন। তবে আমি মনে করি এটাই জনমত। তিনি বলেন, কেন সিটি করপোরেশন করা হল। মানুষের নাগরিক সুযোগ সুবিধা বৃদ্ধি করার জন্য। পৃথিবীতে অনেক রাষ্ট্র আছে সিটি করপোরেশন সেখানে ওভার পাস আন্ডার পাস করে এই রেলগাড়ী এবং সড়ক পথে সমন্বয় করা হয়। নারায়ণগঞ্জে এটা কেন করা হল না। এই শহরের উপর দিয়ে পাঁচটা রেল ক্রসিং যার তিনটা মূল সড়কের ওপরে। এটার সমাধান করা হয়নি।

‘আপনারা যে কয়েকটা দাবি দিয়েছেন প্রত্যেকটা যুক্তিসঙ্গত। এগুলো নাগরিকদের মনের কথা। আমি আপনাদের সাথে তাল মিলিয়ে চলেছি ভবিষ্যতেও চলবো। আপনাদের সাথে নিয়েই কাজ করবো। ‘তিনি আরও বলেন, আমি যতদিন বিআরটিসির চেয়ারম্যান ছিলাম প্রত্যেকটা বাস ট্রাকে আমার টেলিফোন নম্বর দেয়া ছিল। আমি কারও ওপর নির্ভর করিনি। জনগণের মেসেজের ওপর নির্ভর করেছি। আমি সিটি করপোরেশন চালালে প্রশাসনের মতামতের ওপর নির্ভর করবো না। আপনাদের মতামতের ওপর নির্ভর করবো। এদিকে ১৫ ও ১৬ নং ওয়ার্ডের টানবাজার, মিনা বাজার, ডাইলপট্টি, নিতাইগঞ্জ, সুতারপাড়া, জিমখানা, দেওভোগ, পাইকপাড়া, বাবুরাইলসহ আশেপাশে এলাকায় গণসংযোগ করেন।

Be the first to comment

Leave a Reply

Your email address will not be published.


*